অনুবাদ কবিতা-শুভঙ্কর দাশ

শুভঙ্কর দাশ

শুভঙ্কর দাশ

জ্যাক স্পাইসার-এর কবিতার অনুবাদ

জ্যাক স্পাইসারের জন্ম ১৯২৫ লস এঞ্জেলিস, ক্যালিফোর্নিয়ায়। তাঁকে সান ফ্রানসিস্কো রেনেসাঁর একজন হিসেবে ধরা হয়। তিনি তৈরি করেছিলেন সিক্স গ্যালারি কয়েকজন শিল্পী বন্ধুর সহায়তায়। যেখানে অ্যালেন গিন্সবার্গ তাঁর কবিতা হাউল প্রথমবার পাঠ করেন। যদিও তিনি বিটদের আত্মপ্রচারকে ভালো চোখে দেখেন নি। সমালোচনা করেছেন। কোনোরকম লেবেলের প্রতি অনীহা তাঁকে প্ররোচিত করেছে ছোটো দল আর তরুণ লেখকদের সাথে মেলামেশা করতে। স্পাইসার মারা যান ১৯৬৫তে।   

                                       

জ্যাক স্পাইসারের কবিতা

১.যে কোনো বোকাই সমুদ্রে নামতে পারে

যে কোনো বোকাই সমুদ্রে নামতে পারে

কিন্তু একজন ঈশ্বরীকে লাগে

তার থেকে উঠে আসতে।

সমুদ্রের সত্যি আসলে সত্যি

গোলকধাঁধা আর কবিতার জন্যও। আপনি যখন সাঁতরাতে শুরু করবেন

টালমাটাল সমুদ্রের ছন্দের ভেতর দিয়ে আর সামুদ্রিক উদ্ভিদের রূপকের ভেতর দিয়ে

আপনাকে হতে হবে একজন ভালো সাঁতারু বা জন্মগত ঈশ্বরী

এর ভেতর থেকে ফিরে আসার জন্য।

দেখুন কীভাবে জলনকুল জলে পাগলের মতো উপরনিচ করছে

ঠিক কবিতার মাঝ বরাবর

যেখানে জল প্রায় নড়ছে না সেখানেই

ওরা শান্তিতে খেলতে আগ্রহী

আপনি হয়ত বেরিয়ে আসতে পারবেন ওই সমস্ত ঢেউ আর পাথরের ভেতর থেকে

কবিতার মাঝামাঝি সেটা ছোঁয়ার জন্য

কিন্তু যদি আপনি ওই পবিত্র জলে অনেকটা সময় কাটাতে পারেন

এতটাই যে আপনি ফের ফিরে আসতে চান

তখনই মজাটা শুরু হয়

যদি আপনি একজন কবি বা জলনকুল বা অতিপ্রাকৃত কেউ একজন

না হলে স্রেফ ডুবে যাবেন, ডুবে যাবেন

যে কোনো একজন গ্রিক আপনাকে গোলকধাঁধাঁয় নিয়ে যেতে পারে

কিন্তু তার থেকে বেরোতে হলে নায়ক হতে হয়

গোলকধাঁধাঁর জন্য যা সত্যি তা

ভালোবাসা আর স্মৃতির জন্যও সত্যি।

যখন আপনি মনে করা শুরু করবেন।

২.সমমনপ্রাণের স্তব

তোমার মাজাকি

একটা লেকের মতো

যা শুয়ে থাকে ওখানে কোনো চিন্তা ছাড়াই

আর দেখে

মৃত সমুদ্রদের

পাখিরা উড়ে বেড়ায়

ওখানে

ওর নীল বিস্মিত করে ওদের যা জলের কথা চিন্তা করে না

কোনো চিন্তা করে না

জল নিয়ে।

৩.একটা হীরে

 একটা হীরে

আছে

চাঁদের হৃদয়ের ভেতর বা ডালপালায় বা আমার নগ্নতায়

আর এই ভুবনে হীরের মতো আর কিছু নেই

পুরো মাথার ভেতরেও

কবিতা হচ্ছে একটা গাংচিল যে বিশ্রাম করছে সমুদ্রের শেষে একটা জেটিতে

একটা কুকুর চাঁদের দিকে তাকিয়ে চিৎকার করছে

একটা কুকুর ডালপালার দিকে তাকিয়ে চিৎকার করছে

একটা কুকুর নগ্নতার দিকে তাকিয়ে চিৎকার করছে

একটা কুকুর চিৎকার করছে পবিত্র মন নিয়ে।

আমি চাই একটা কবিতা হোক গাংচিলের পেটের মতো পবিত্র।

ভুবন পড়ে গেল ছত্রখান হয়ে আর একটা হীরে অনাবৃত হলো

গাংচিল নামে দুটো শব্দ শান্তিতে ভেসে যাচ্ছে যেখানে

আছে ঢেউগুলো

ওখানে কুকুরটা মারা গেছে চাঁদের সঙ্গে, ডালপালার সঙ্গে,

আমার নগ্নতার সঙ্গে

হীরের মতো আর কিছু নেই এই ভুবনে

কিছু নেই পুরো মাথার ভেতরেও।

৪.ভাবো শয়তানের কথা

ভাবো শয়তানের কথা

একজন দেবত্বহীন দেবদূত

একটা আপেল

পরিষ্কার ছিঁড়ে নেওয়া হয়েছে স্বাদ, রং-এর ইচ্ছায়,

শক্তি, সৌন্দর্য, গোলাকার, বীজ

ঈশ্বর যা এঁকেছেন তা ছাড়াই, সবকিছু আছে

একটা আপেল আছে।

ভাবো শয়তানের কথা

একজন দেবত্বহীন দেবদূত

একটা কবিতা

যা নিজেকে শব্দের ভেতর পরিমার্জনা করে নিয়েছে

ভাবো, অন্ত্যমি্‌ল, নির্ঘন্ট

যা ঈশ্বর বলেছিলেন তা নেই, সব আছে

একটা কবিতা আছে।

আমি বলছি আইনের কথা, আইন

আছে?

শয়তান আসলে কে

জামাকাপড়হীন এক সম্রাট

চামড়া নেই, মাংস নেই, হৃদয় নেই

একজন সম্রাট।

 
শেয়ার করুন